বৃহস্পতিবার, ১৩ই জুন, ২০২৪ ইং
কমাশিসা পরিবারবিজ্ঞাপন কর্নারযোগাযোগ । সময়ঃ বিকাল ৩:৪৮
Home / দেশ-বিদেশ / সিরিয়ায় রাজনৈতিক সমঝোতা না হলে আইএসকে পরাস্ত করা অসম্ভব

সিরিয়ায় রাজনৈতিক সমঝোতা না হলে আইএসকে পরাস্ত করা অসম্ভব

alg-obama-assad-jpg_10729_104425সিরিয়ায় চলমান গৃহযুদ্ধ বন্ধে দেশটির প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদকে অব্যশই ক্ষমতা থেকে সরে দাঁড়াতে হবে। বুধবার এএফপিকে এমনটাই জানান মার্কিন পেসিডেন্ট বারাক ওবামা।
মধ্য প্রাচ্যের দেশ সিরিয়ায় সংকট নিরসনে পরবর্তী নির্বাচনের ইঙ্গিত দিয়ে ওবামা বলেন, দেশটির এমন পরিস্থিতিতে আসাদকে ক্ষমতায় থাকার কোনো যুক্তি দেখছি না আমি। ফিলিপিন্সের রাজধানী ম্যানিলায় অনুষ্ঠিত অ্যাপেক সম্মেলনে এমনটাই বলেন ওবামা।
তিনি বলেন, সিরিয়ায় শান্তি প্রতিষ্ঠার ব্যাপারে অবশ্যই রাশিয়া ও ইরানকে এককাতারে আসতে হবে। তবে সিরিয়ার জনগণ কী চায় এ ব্যাপারেও মতামত দিয়েছেন মার্কিন এ নেতা। তিনি বলেন, সিরিয়ার অধিকাংশ নাগরিক সুষ্ঠু পরিবেশ সৃষ্টির পক্ষে।
এদিকে সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদ আইএস সৃষ্টির জন্য পশ্চিমাদের দায়ী করে বলেছেন, তার দেশ ইসলামিক স্টেটের (আইএস) প্রজননক্ষেত্র নয়। বুধবার ইতালির জাতীয় সম্প্রচার মাধ্যম রাইকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে আসাদ বলেন, আমি আপনাদের নিশ্চিতভাবেই বলতে পারি যে, সিরিয়ার ভেতর দায়েশের (আইএস) কোনো প্রাকৃতিক ও সামাজিক প্রজননকেন্দ্র নেই। তিনি বলেন, তুরস্ক, সৌদি আরব ও কাতারের সহায়তা এবং অবশ্যই বিভিন্ন পথে সন্ত্রাসীদের সহায়তার পশ্চিমা নীতির কারণেই জিহাদিরা প্যারিস হত্যাযজ্ঞসহ অন্যান্য হামলা চালাতে সিরিয়ায় প্রশিক্ষণ নিতে পেরেছে। সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট ক্ষুব্ধ কণ্ঠে বলেন, আইএসের জন্ম সিরিয়ায় নয়, ইরাকে হয়েছিল। সাবেক ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী টনি ব্লেয়ারের উদ্ধৃতি দিয়ে তিনি বলেন, ইরাক যুদ্ধ আইএসআইএস সৃষ্টিতে সহায়ক হয়েছে। আসাদ আরও বলেন, ব্লেয়ারের এই স্বীকারোক্তিই আমার বক্তব্যের সপক্ষে সবচেয়ে বড় প্রমাণ। গত সপ্তাহে প্যারিসে ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলার পর সিরিয়ার গৃহযুদ্ধ অবসানে কূটনৈতিক সমাধানের বিষয়টি জোরদার হয়েছে। এই হামলার কারণে সিরিয়ায় গৃহযুদ্ধ কূটনৈতিক উপায়ে মীমাংসার প্রয়োজনীয়তা গুরুত্ব পেয়েছে। সূত্র : অনলাইন

About Islam Tajul

mm

এটাও পড়তে পারেন

ইদলিবের মাধ্যমেই সিরিয়ার বিজয় সুচিত হবে ইনশাআল্লাহ!

ইদলিবে শিয়া মুনাফেক রুশ কাফেরদের এক কথায় তুলাধুনা চলবে……. প্রস্তুত তুরস্কের নৌবাহিনী সেনাবাহিনী বিমানবাহিনী। ইতিমধ্যেই ...