শুক্রবার, ১৪ই জুন, ২০২৪ ইং
কমাশিসা পরিবারবিজ্ঞাপন কর্নারযোগাযোগ । সময়ঃ রাত ৯:৪৩
Home / কওমি অঙ্গন / আহমদ শফী ডাক দিলে এক সেকেন্ড দেরি করব না

আহমদ শফী ডাক দিলে এক সেকেন্ড দেরি করব না

”আহমদ শফী ডাক দিলে এক সেকেন্ডও দেরি করব না” ….ফরিদ উদ্দিন মাসউদ

রশীদ জামীল:

masudএদেশের লক্ষ লক্ষ কওমি সন্তান বিব্রত। তাঁরা দেখতে পাচ্ছে স্বীকৃতির প্রশ্নে তাদের মুরব্বিগণ পরিষ্কার বিভক্ত হয়ে পড়ছেন। তারা ঠিক করতে পারছে না স্বীকৃতি চাইবে নাকি মুরব্বিদের ঐক্য চাইবে। উত্তরণের কোনো ব্যবস্থা নেই?
-ফ.উ.মা: মাদারিসে কওমিয়াহ আমাদের নাড়ির প্রতিষ্ঠান। এদেশের লক্ষ লক্ষ কওমি ছাত্র আমাদের সন্তান। আমাদের উচিত আমাদের সন্তানদের জন্য কিছু করে যাওয়া। আমরা সেটাই করবার চেষ্টা করছি।

>>তাতো ঠিকাছে। কিন্তু সেটা কি উলামায়ে কেরাম অবিভক্ত আকারে ঐক্যবদ্ধভাবে করতে পারতেন না?
-ফ.উ.মা: দেখুন, স্বীকৃতি আমাদের অধিকার। এটা কারো কাছ থেকে দান হিশেবে গ্রহণ করার কিছু নেই। আর অধিকার আদায় করে নিতে হয়। ইনশাআল্লাহ আমরা আমাদের অধিকার আদায় করেই ছাড়ব। বাকি থাকল আলেম-উলামার মধ্যে বিভক্তির ব্যাপারটি। ইনশাআল্লাহ, সেটাও দূর হয়ে যাবে। অপেক্ষা করুন, আস্থা রাখুন।

>>কিন্তু আস্থার জায়গাটি তো ছোট হয়ে আসছে। প্রত্যাখ্যান-পালটা প্রত্যাখ্যানের অস্বস্থিকর নিউজ পাচ্ছি আমরা। কীভাবে কী হবে?
-ফ.উ.মা: দেশের শীর্ষ কওমি উলামায়ে কেরাম অনেকেই আমাকে স্বীকৃতির ব্যাপারে প্রতিনিয়ত উৎসাহিত করে যাচ্ছেন। এই মুহুর্তে আমি সকলের নাম নিতে চাচ্ছি না। বাকিরা যাঁরা, আমি তাঁদের সবার প্রতিই শ্রদ্ধাশীল। এদেশের কওমি উলামায়ে কেরাম যেকোনো দিন যেকোনো জায়গায় এ ব্যাপারে আলোচনা করার জন্য বসতে চাইলে আমি বসতে রাজি আছি। শাহ আহমদ শফী দামাত বারাকাতুহুমকে তাঁরা মুরব্বি মানছেন, আমিও মানি। তাহলে সমস্যা কোথায়? আপনি শুনে থাকবেন আমি অনেকবার বলেছি, আল্লামা শাহ আহমদ শফীকে আমি অনেক অনেক এবং অনেক বেশি শ্রদ্ধা করি। আমি আমাকে উনার পায়ের ধুলোর যোগ্যও মনে করি না।

>>কিন্তু আহমদ শফী তো আপনার নেতৃত্বে ঘোষিত কমিটিকে প্রত্যাখ্যান করেছেন।
-ফ.উ.মা: আমি মনেকরি হুজুরকে বাস্তব অবস্থার সঠিক ইনফরমেশন দেয়া হয়নি। আমার বিশ্বাস আমি যদি হুজুরের সাথে দশ মিনিটের জন্য বসি, আর সবকিছু ব্যাখ্যা করি, তাহলে হুজুর আমাকে বলবেন, কাজ চালিয়ে যাও, আমার দোয়া থাকলো।
>>দোয়া পাবার জন্য তো দোয়া চাইতে হয়। আপনি কি প্রজ্ঞাপন জারির আগে বা পরে হুজুরের দোয়া চেয়েছিলেন বা যোগাযোগ করেছিলেন উনার সাথে?
-ফ.উ.মা: প্রজ্ঞাপন জারির আগেই আমি হুজুরের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেছি। ফোন দিয়েছি। আমাকে হুজুরের সাথে কথা বলতে দেয়া হয়নি। আমাকে জানানো হয়েছে হুজুর অসুস্থ।
>>সরাসরি হাটহাজারি চলে গেলেও পারতেন।
-ফ.উ.মা: তা পারতাম কিন্তু কাজ হত না। বছর বখানেক আগে একবার গিয়েছিলাম হুজুরের কাছ থেকে কিছু নির্দেশনা আনতে। সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত আমাকে অফিসে বসিয়ে রাখা হয়েছিল। দুপুর বেলা আমাকে জানানো হল, হুজুরের শরীর ভাল নেই। দেখা করা যাবে না।

>> আল্লামা আহমদ শফী বাংলাদেশের উলামায়ে কেরামের কাছে গ্রহণযোগ্য ব্যক্তিত্ব। আপনি কি পারেন না যে কোনোভাবেই হোক উনার কাছে যেতে। সার্বিক অবস্থার একটা ব্যাখ্যা উনার সামনে পেশ করতে?
-ফ.উ.মা:আমি চেষ্টা করে যাচ্ছি। সুযোগ পাচ্ছি না অথবা দেয়া হচ্ছে না। কেউ যদি মধ্যস্থ হিশেবে আমাকে হুজুর পর্যন্ত পৌছে দেয়ার সুযোগ করে দিতে পারেন, আমি তাঁর কাছেও কৃতজ্ঞ থাকব।
>>তারমানে আল্লামা আহমদ শফী যদি এ ব্যাপারে কথা বলার জন্য আপনাকে ডেকে পাঠান, আপনি যাবেন?
-ফ.উ.মা: এক সেকেন্ডও দেরি করব না।
>>জাযাকাল্লাহ হুজুর। দোয়া চাই। সময় দেয়ার জন্য অনেক ধন্যবাদ।
-ফ.উ.মা: আপনাকেও ধন্যবাদ। দোয়া করবেন।
>>আসসালামু আলাইকুম।
-ফ.উ.মা: ওয়া আলাইকুম আসসালাম। ভালো থাকবেন।
———– কিছুক্ষণ আগে মাওলানা ফরিদ উদ্দিন মাসউদ সাহেবের কাছ থেকে টেলিফোনে নেয়া।
===============================

বিরাজমান বিব্রতকর অস্বস্থির মধ্যে যে ব্যাপারগুলো মোটামুটি ষ্পষ্টই হয়ে উঠেছে-
১. ‘স্বীকৃতি’ ঘোষণার দ্বারপ্রান্থেই আছে। এটা এখন হয়েই যাবে।
২.যাদের আন্ডারেই হোক, কিছু মাদরাসা চলে যাবে তাদের সাথে। কিছু থেকে যাবে বাইরে। (কতদিন থাকবে বলা মুশকিল!) তারমানে, পরিষ্কার ভাঙ্গন।
৩. কিছু মাদরাসা থাকবে ‘দেখি কী হয়’ অবস্থানে। ঝুপ বুঝে কুপ মারবেন তাঁরা।

সমাধানের উপায়?
!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!
-যেহেতু মাওলানা ফরিদ উদ্দিন মাসউদ রক্তে-মাংসে কওমি আলেম, দেওবন্দ ঘরানারও,
-যেহেতু স্বীকৃতি প্রশ্নে আল্লামা আহমদ শফীর মুরব্বিয়ানা মেনে নিতে তাঁর কোনো আপত্তি নেই,
-যেহেতু এই মুহূর্তে মাওলানা মাসউদকে অভারটেক করে সরকার থেকে স্বীকৃতি আদায় করার চিন্তা করাও এক ধরণের বোকামির পর্যায়ে পড়ে,
– এবং যেহেতু সবাই এখন স্বীকৃতি চান-
____________অতএব, আল্লামা আহমদ শফী যদি মাওলানা ফরিদ উদ্দিন মাসউদ সাহেবকে ডেকে পাঠান, কাছে বসিয়ে নির্দেশনা দিয়ে বলে দেন কীভাবে কী করলে কওমির স্বকীয়তা বজায় থাকে, স্বীকৃতি মিলে আবার ঐক্যও অটুট থাকে, তাহলেই মনেহয় সুন্দর একটি সমাধানে আসা সম্ভব। এছাড়া আর কোনো রাস্তা খোলা আছে বলে মনে হয় না।

কেউ আছেন, এদেশের লক্ষ লক্ষ কওমি সন্তানের পক্ষ থেকে যিনি হুজুরের কানে এই সংবাদটি পৌছে দিতে পারেন?

About Islam Tajul

mm

এটাও পড়তে পারেন

কওমি মাদরাসা কল্যাণ ট্রাস্ট, বাংলাদেশ

খতিব তাজুল ইসলাম ট্রাস্টের প্রয়োজনীয়তাঃ কওমি অংগন একটি স্বীকৃত ও তৃণমূল প্লাটফর্ম। দেশ ও জাতির ...