বুধবার, ২৭শে অক্টোবর, ২০২১ ইং
কমাশিসা পরিবারবিজ্ঞাপন কর্নারযোগাযোগ । সময়ঃ রাত ২:৫৭
Home / আন্তর্জাতিক / আসামে লাউড স্পিকারে আজান নিষিদ্ধ

আসামে লাউড স্পিকারে আজান নিষিদ্ধ

কমাশিসা : ভারতের আসামের রাজ্য সরকার  ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের উপর নতুন বিধি-নিষেধ আরোপ করেছে। নতুন আইন অনুযায়ী ধর্মীয় স্থান থেকে ১০০ মিটার পর্যন্ত এলাকায় কোনো প্রকার সাউন্ড করা যাবে না। উক্ত এলাকাকে ‘সাইলেন্ট জোন’ হিসাবে ঘোষণা করল কামরূপ জেলা প্রশাসন।

শুক্রবারই এই সংক্রান্ত এক নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে। মন্দির, মসজিদ, গুরুদ্বার-সহ যেকোনও রকম ধর্মস্থানের ক্ষেত্রেই এই নির্দেশ বহাল থাকবে।

কামরূপ (মেট্রোপলিটন) জেলা ম্যাজিস্ট্রেট ডঃ অঙ্গমাথু জানান, অসম সরকারের দূষণ নিয়ন্ত্রণ আইন ২০০০ সাল অনুযায়ী এই নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে। তবে এক্ষেত্রে কোনও ধর্মস্থান থেকে ১০০ মিটারের মধ্যে লাউডস্পিকার ব্যবহার করা যাবে কি না তা নিয়ে নির্দেশিকায় স্পষ্ট করে কিছু বলা হয়নি। সংবাদমাধ্যমের কাছেও এ প্রশ্নের জবাব দিতে চাননি জেলা ম্যাজিস্ট্রেট। তবে তিনি বলেন, রাত ১০টা থেকে সকাল ৬টা পর্যন্ত এমনিই লাউডস্পিকার ব্যবহারের ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে।

‘সাইলেন্ট জোন’-এর আওতায় রাখা হয়েছে সবরকম সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতাল, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, আদালত, মন্দির, মসজিদ, গুরুদ্বার, চার্চ, মনাস্ট্রি, মঠকে। অর্থাৎ এগুলি থেকে ১০০ মিটারের মধ্যে কোনওরকম আওয়াজ বরদাস্ত করা হবে না। লোক নির্মাণ বিভাগকে বলা হয়েছে, ১৫ দিনের মধ্যে এইসব প্রতিষ্ঠানের আশেপাশে বোর্ড লাগিয়ে ‘সাইলেন্ট জোন’ লিখে দেওয়ার জন্য।

তবে মুসলিম অধিবাসীগণ এটাকে আজান বন্ধের অপকৌশল হিসেবে দেখছে। কারণ অন্য ধর্মগুলো ও তাদের প্রতিষ্ঠানে নিয়মিত মাইক ব্যবহার করা হয় না। সূত্র. আওয়ার ইসলাম।

About Islam Tajul

mm

এটাও পড়তে পারেন

কওমি মাদরাসা কল্যাণ ট্রাস্ট, বাংলাদেশ

খতিব তাজুল ইসলাম ট্রাস্টের প্রয়োজনীয়তাঃ কওমি অংগন একটি স্বীকৃত ও তৃণমূল প্লাটফর্ম। দেশ ও জাতির ...